প্রচ্ছদ » ক্যাম্পাস » কুলাউড়ার লংলা আধুনিক ডিগ্রি কলেজে সহশিক্ষা কার্যক্রমের উদ্বোধন

কুলাউড়ার লংলা আধুনিক ডিগ্রি কলেজে সহশিক্ষা কার্যক্রমের উদ্বোধন

তাহমিদুজ্জামান রাফি, মৌলভীবাজার

শিক্ষা

জঙ্গিবাদের কালো থাবা রুখে ‘বাংলার অসাম্প্রদায়িক মানবিক চেতনা’ ফিরিয়ে আনতে সারা দেশের সব শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে সাংস্কৃতিক কর্মকাণ্ডসহ সহশিক্ষা কার্যক্রম জোরদার করা হচ্ছে। এরই ধারাবাহিকতায় মৌলভীবাজারের কুলাউড়ার লংলা আধুনিক ডিগ্রি কলেজে সপ্তাহে একদিন করে সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে।

 

বুধবার (২৩ আগস্ট) কলেজ অডিটোরিয়ামে প্রতিষ্ঠানটির অধ্যক্ষ মোঃ আতাউর রহমান সপ্তাহিক সাংস্কৃতিক কার্যক্রমের উদ্বোধন করেন। কলেজের শিক্ষক জনাব মাজহারুল ইসলামের পরিচালনায় ও গায়ত্রী চক্রবর্তীর উপস্থাপনায় অন্যান্য শিক্ষকদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন – মোঃ নাজমুল হোসেন, নাজমা বানু, সমরেশ কুমার রায়, জয়ন্ত দেবনাথ, মোঃ গোলাপ মিয়া, সুরজিৎ কুমারসহ আরও অনেকে।

 

অনুষ্ঠানে অংশগ্রহণকারী শিক্ষার্থীসহ সকল বিভাগের ছাত্র-ছাত্রী উপস্থিত ছিল। সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানে বিজ্ঞান, ব্যবসা ও মানবিক তিনটি শাখার রোল নং অনুযায়ী ছয়জন করে মোট আঠারো জন শিক্ষার্থী অংশগ্রহণ করে। প্রতিযোগীতায় অংশগ্রহণকারী শিক্ষার্থীদের ফলাফল আগামী সপ্তাহের সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানে জানানো হবে। তিনটি শাখার পরবর্তী আঠারো জন আগামী সপ্তাহে অংশগ্রহণ এবং এভাবে রোল নং ধারাহিকতায় প্রত্যেক সপ্তাহে আঠারো জন অংশগ্রহণ করবে।

 

এ নিয়ে অধ্যক্ষ আতাউর রহমান বলেন, সাম্প্রতিক জঙ্গিবাদের ঘটনার পরিপ্রেক্ষিতে দেশের সার্বিক স্বার্থে ছেলেমেয়েদেরকে সাংস্কৃতিক কার্যক্রমের সঙ্গে সম্পৃক্ত করতে হবে। জঙ্গিবাদের থাবা থেকে ছেলেমেয়েদের বাঁচাতে স্কুল-কলেজে সহশিক্ষা কার্যক্রম বাড়াতে হবে। মাজহারুল ইসলাম বলেন, সাংস্কৃতিক কর্মকাণ্ড না থাকলে শিক্ষা ‘অসম্পূর্ণ’ থেকে যায়। শিক্ষার মূল উদ্দেশ্যই হল একজন মানুষের মধ্যে লুকিয়ে থাকা প্রতিভাকে বিকাশিত করা। আর এটি সাংস্কৃতিক কার্যক্রমের দ্বারাই সম্ভব।

>
বাংলা ইনিশিয়েটরে প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।