প্রচ্ছদ » সাইন্স ভিউ » বিজ্ঞান ফিচার » কানাডায় মিলল পাখির মত দেখতে ডাইনোসরের নতুন প্রজাতি

কানাডায় মিলল পাখির মত দেখতে ডাইনোসরের নতুন প্রজাতি

বিজ্ঞানডেস্ক | বাংলা ইনিশিয়েটর
না-পাখি, না-সরীসৃপ। বরং বলা যায় উভয়েরই মাঝামাঝি। উচ্চতায় প্রায় এক মানুষ সমান। দেখতে অনেকটা সত্যজিৎ রায়ের ‘চঞ্চু’র মতো। বিজ্ঞানীরা জানালেন আদতে এটি ডাইনোসর। শুধু দেখতে পাখির মতো। কানাডার আলবার্টায় এমনই এক অদ্ভুত দর্শন শিকারির সন্ধান পেলেন জীবাশ্মবিদ ফিলিপ জে কুরি। নিজের নামের সঙ্গে মিলিয়েই এই প্রজাতির নাম রাখলেন আলবার্টাভেনাটর কুরি, অর্থাৎ ‘কুরির আলবার্টা শিকারি।’

বর্তমানে কানাডার যেখানে রেড ডিয়ার নদী উপত্যকা, সেখানেই প্রায় ৭ কোটি বছর আগে অবাধে ঘুরে বেড়াত এই প্রাণী। গবেষক জানাচ্ছেন, এই প্রাণির সঙ্গে সাদৃশ্য আছে ট্রোডনের। বরং বলা যায় আলবার্টাভেনাটর কুরি আদতে ট্রোডনেরই তুতো ভাই। তবে ট্রোডনেরা রাজত্ব করত সাড়ে সাত কোটি বছর আগে। ফসিল বলছে, বাহ্যিক গঠনে  মধ্যেই আশ্চর্য মিল আছে। উভয়েই দু’পায়ে হাঁটে। শরীর পালকে ঢাকা। ফিলিপ জানিয়েছেন, প্রাথমিক ভাবে হাড়ের গঠন দেখে ট্রোডন আর আলবার্টাভেনাটরকে একই প্রাণী বলে মনে করেছিলেন তাঁরা।

বিজ্ঞানীরা জানিয়েছেন, আলবার্টায় নতুন জীবাশ্ম আবিষ্কারের পর ট্রোডন এবং আলবার্টাভেনাটরের খুলির গঠন পরীক্ষা করেন বিজ্ঞানীরা। তাতে দেখা গিয়েছে, আলবার্টাভেনাটরের খুলি অনেক ছোট, কিন্তু তুলনায় খুব শক্ত। রয়্যাল ওন্টারিও মিউজিয়ামের শীর্ষ গবেষক ডেভিড ইভানের কথায়, ‘‘ভবিষ্যতে আলবার্টাভেনাটরের পরিপূর্ণ জীবাশ্ম আবিষ্কারের অপেক্ষায় রয়েছি। তা হলেই এই প্রাণীটি সম্পর্কে আরও বিশদে জানা যাবে।’’

>
বাংলা ইনিশিয়েটরে প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।