প্রচ্ছদ » খেলাধুলা » বিপিএল যুদ্ধ জয়ের স্বপ্নে ৮ আইকন

বিপিএল যুদ্ধ জয়ের স্বপ্নে ৮ আইকন

 সাব্বির রায়হান অপি | বাংলা ইনিশিয়েটর

আগামি ২ নভেম্বর থেকে শুরু হতে যাচ্ছে চার ছক্কার যুদ্ধ। ইতিমধ্যেই যুদ্ধ জয়ের স্বপ্ন দেখতে শুরু করে দিয়েছে ৮ রাজা অর্থাৎ ৮ আইকন প্লেয়ার। আর দেশি-বিদেশি সব ধরনের দর্শকের জন্য বিপিএল এক অন্য মাত্রার আকর্ষন। আর বিপিএলের অন্যতম আকর্ষন আইকন প্লেয়ার। টুর্নামেন্ট শুরুর আগেই সকলের নজর থাকে এই আইকনদের ওপর। তাদের পারফর্মেন্সসহ খুঁটিনাটি সব বিষয় নিয়ে হয় চুলচেড়া বিশ্লেষণ। চলুন আমাদের ক্রিকেটের এই হিরোদের আরো কাছ থেকে জানি…

● মাশরাফি বিন মর্তুজা

এবারের বিপিএলে রংপুর রাইডার্সের হয়ে মাঠ মাতাবেন ম্যাশ। গেল বিপিএলের আসরে খেলেছেন কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ানসের হয়ে। বিপিএলের ৪ সিজনের মধ্যে ৩ সিজনেই কাপ নিজের করে নিয়েছেন জাতীয় দলে সবচেয়ে সফল এই অধিনায়ক। অতুলনীয় নেতৃত্ব, মিডিয়াম ফাষ্ট বোলিংয়ের পাশাপাশি লো অর্ডারে চার ছক্কার ঝড় তুলতেও পারেন তিনি। টি২০তে এপর্যন্ত ৫৩ ম্যাচে ৮.০৫ ইকোনমিতে ৪২ উইকেট নিয়েছেন নড়াইল এক্সপ্রেস। এছাড়া ১৩৫.৬১ স্ট্রাইক রেটে ৩৭৭ রানও করেছেন তিনি।

● সাকিব আল হাসান

ডিফেন্ডিং চ্যাম্পিয়ন ঢাকা ডায়নামাইটসের হয়ে এবারের আসরও কাঁপানোর অপেক্ষায় নাম্বার ওয়ান অলরাউন্ডার। গত আসরে ঢাকা ডায়নামাইটসের জার্সি গায়ে শিরোপা হাতে নিয়েছিলেন সাকিব। ব্যাটিং-বোলিং কোনটা বেশি ভাল পারেন তা হয়ত নিজেই বলতে পারবেন না। আর সাথে তো আক্রমণাত্মক নেতৃত্ব আছেই। সব মিলিয়ে বিপক্ষ দলের জন্য সাকিব যেন এক আতঙ্কের নাম। টি২০তে ৫৮ ম্যাচে ১২১.২৯ স্ট্রাইক রেট ও ২৩.৬৯ গড়ে ১২০৮ রান এবং ৬.৭৮ ইকোনমিতে ৭০ উইকেট নিয়ে নাম্বার ওয়ান অলরাউন্ডারের স্থান ধরে রেখেছেন।

● তামিম ইকবাল

ড্যাসিং ওপেনারের এবারের দল কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ানস। শেষবার চিটাগং ভাইকিংসের হয়ে ঝড় তুলেছেন জাতীয় দলের সেরা ওপেনার। ওপেনিংয়ে নেমে প্রয়োজন মত শান্ত ও আক্রমণাত্মক দু-ধরনের ব্যাটিং-ই করতে পারেন এ ব্যাটসম্যান। সাথে শান্ত মস্তিস্কের নেতৃত্বও দেন। টি২০তে ম্যাচে ১১৫.৪৭ স্ট্রাইক রেটে ২৩.৫৭ গড়ে ১২০২ রান করেছেন এই উদ্বোধনী ব্যাটসম্যান।

● মুশফিকুর রহিম

এবারের বিপিএলে রাজশাহী কিংসের হয়ে মাঠে দেখা যাবে টেস্ট অধিনায়েককে। এর আগের আসরে বরিশাল বুলসের হয়ে দারুন পার্ফমেন্স করেছেন মুশি। উইকেটের সামনে এবং পিছনে দারুনভাবে লড়াই করেন এই উইকেটকিপার ব্যাটসম্যান। অধিনায়ক হিসাবে দারুন সফল শান্ত মস্তিস্কের মুশি। ৫১ ম্যাচে ১১২.৯১ স্ট্রাইক রেটে ৭২৬ রান করেছেন। দলের প্রয়োজনে একাই লড়ে যান তিনি।

● মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ

গেল আসরে খুলনা টাইটানসের হয়ে অসাধারন খেলেছিলেন সাইলেন্ট কিলার। এবারও পুরনো দলের হয়েই খেলে যাবেন এই অলরাউন্ডার। গত আসরে একাই বেশ কয়েকটি ম্যাচ জিতিয়ে চমক দেখিয়েছিলেন। টি২০তে ৫১ ম্যাচে ১১৫.৪১ স্ট্রাইক রেটে ও ২০.২৩ গড়ে ৮০৯ রান করেছেন। এছাড়া বোলিং করেছেন এমন ৪০ ম্যাচে ৭.২৮ ইকোনমিতে ২২ উইকেট নিয়েছেন।

● সাব্বির রহমান

নতুন দল সিলেট সুরমা সিক্সার্সের হয়ে চার ছক্কার ঝড় তুলবেন এই হার্ড হিটার ব্যাটসম্যান। গত আসরে রাজশাহি কিংসের হয়ে দারুন এক সেঞ্চুরিসহ দারুন কিছু ইনিংস থেলেছেন এই টি২০ স্পেশালিস্ট। টি২০তে মোট ৩০ ম্যাচে ২৮.৮৪ গড়ে ও ১২০.৭৭ স্ট্রাইক রেটে ৭২১ রান করেছেন। নিজের দিনে ব্যাট হাতে যেকোন বোলারকে ঘায়েল করার পাশাপাশি লেগব্রেকেও পারদর্শী।

● সৌম্য সরকার

চিটাগং ভাইকিংসের হয় এ আসরে মাঠে দেখা যাবে এই হার্ডহিটার ওপেনেরকে। গত বিপিএলে রংপুর রাইডার্সের হয়ে তেমন ভাল না করলেও বেশকিছু দারুন ইনিংস দেখা গিয়েছিলো এই তরুনের ব্যাটে। নিজের দিনে এতটাই ভয়ংকর হয়ে ওঠেন যে কোন বোলার সামনে দারানোর সুযোগ পায় না। আন্তর্জাতিক টি২০তে ২৪ ম্যাচে ১২৩.৪ স্ট্রাইক রেটে ৪৪৩ রান করেছেন এই ওপেনার। দারুন ব্যাটিং শিল্পের পাশাপাশি কার্যকরী মিডিয়াম ফাস্ট বোলিংও করতে পারেন।

● মোস্তাফিজুর রহমান

ইঞ্জুরির ফলে গত আসরের দর্শক হয় বসে থাকা মোস্তাফিজকে দেখা যাবে বরিশাল বুলসের হয়ে। অভিষেকের পর কাটার যাদু দিয়ে সাড়া বিশ্বে পরিচিতি পেয়েছেন কাটার মাস্টার। আইপিলে হায়দ্রাবাদের শিরোপা জয়ে রেখেছিলেন সাতক্ষীরার এই তরুন। রয়েছে যেকোন ব্যাটিং লাইন আপে ধস নামানোর ক্ষমতা। আন্তর্জাতিক টি২০তে ১৭ ম্যাচে ৫.১৭ ইকোনমিতে নিয়েছেন ২৭ উইকেট।

কেউ কারো চেয়ে পিছিয়ে নেই। হাড্ডাহাড্ডি লড়াইয়ে নামতে প্রস্তুত এই আইকনেরা। তবু জয় তো একজনেরই হবে। কে হবে সেই বিজয়ি রাজা? কার হতে উঠবে ট্রফি? একমাত্র সময় পারে এর উত্তর দিতে।

>
বাংলা ইনিশিয়েটরে প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।