শিরোনাম
প্রচ্ছদ » খেলাধুলা » নাবির দুর্দান্ত ব্যাটিংয়ে সিরিজ জিতে নিলো আফগানিস্থান!

নাবির দুর্দান্ত ব্যাটিংয়ে সিরিজ জিতে নিলো আফগানিস্থান!

প্রকাশ : ৬ জুন ২০১৮১২:৫৫:৪৫ পূর্বাহ্ন

সাব্বির রায়হান অপি | বাংলা ইনিশিয়েটর

টসে জিতে ব্যাটিং করতে গিয়েও ব্যাটিং ধস নামে বাংলাদেশ লাইন-আপে। গত ম্যাচে বাজে পারফর্মেন্স করার পর আজ ঘুরে দাড়ানোর প্রত্যয় নিয়েই মাঠে নেমেছিল টাইগার দল। কিন্তু ভালো বোলিং করেও সিরিজ হারের লজ্জায় পরতে হলো টাইগারদের। রাশিদ-নাবিদের ভয়ানক বোলিংয়ের সামনে ১৩৪ রানেই থামে তামিম-রিয়াদদের ইনিংস। শেষ সময়ে তাও আশা ছিল কিন্তু অসাধারন ক্যামিওতে বাংলার স্বপ্ন ভাঙ্গেন নাবি।

গত ম্যাচে দ্রুতই ফিরেছেন তামিম, আজকের ম্যাচে লিটন দাস। সাপুরের বলে বড় শট খেলতে গিয়ে রাশিদ খানের হাতে ধরা পরেন তিনি। সবাইকে অবাক করে ৩ নম্বর পজিশনে ব্যাটিং করতে আসেন সাব্বির রহমান। কিন্তু ভালো শুরু করেও ব্যার্থ এই হার্ডহিটার ব্যাটসম্যান। ৯ বলে ১৩ রানে করে নাবির বলে শিনওয়ারির তালুবন্ধি হন। মুশফিকুর-মাহমুদুল্লাহ দুর্দান্ত শুরু করেও বড় ইনিংস খেলতে পারেননি। ১৮ বলে ২২ রান করে নাবির বলে মোহাম্মদ শেহজাদের স্টাম্পিংয়ের শিকার হন মুশফিক। প্রথম বলে ছক্কা মেরে শুরু করলেও ৮ বলে ১৪ রান করে করিম জানাতের বলে বোল্ড হন মাহমুদউল্লাহ।

সাকিব, সৌম, মোসাদ্দেকরা ডাবল জিজিটে যেতেই ব্যার্থ। তিনজনই রাশিদ খানের শিকার। শেষ সময়ে রনির ১৪ বলে ২১ রানের অপরাজিত ক্যামিওতে ৮ উইকেটে ১৩৪ রানের সংগ্রহ পায় বাংলাদেশ। বাংলাদেশ ব্যাটিং ধসের মূলে রয়েছেন নাবি ও রাশিদ। ৪ ওভারে ১৯ রান দিয়ে ২ উইকেট নিয়েছেন নাবি, সমান ওভার বল করে রাশিদ নিয়েছেন ৪ উইকেট। ৪ ওভারে মাত্র ১৫ রান দিয়েছেন মুজিব।

জবাবে ব্যাট করতে নেমে সতর্ক ব্যাটিং আফগানদের। তবে বোলিংয়ে জ্বলে উঠেছিলেন অপু-রুবেলরা। প্রথম ২ ওভারে ১ রানও খরচ করেননি অপু। বাউন্সার-ইওর্কারে আফগানদের শ্বাসরুদ্ধকর টক্কর দিয়েছেন রুবেল। ১৮ বলে ২৪ রান করা শেহজাদকে ফিরিয়ে প্রথম আক্রমন করেন আবু হায়দার রনি। ১৮ বলে ২৪ করে শেহজাদ এলবিডব্লিউ হলে হাল ধরেন বাংলাদেশের বোলাররা। কিপটে বোলিংয়ে ব্যাটসম্যান বেধে রাখছিলেন মোসাদ্দেক-রনিরা। ৩১ বলে করা উসমান গনিকে সৌমর তালুবন্ধি করেন রুবেল। অধিনায়ক স্টানিকজাইকে ফেরান মোসাদ্দেক হোসেন সৈকত। সৈকতের বলে এগিয়ে মারতে গেলে ৪ রানেই স্টাম্পিংয়ের শিকার হন স্টানিকজাই।

৪১ বলে ৪৯ রান করা শিনওয়ারিকেও ফেরান সৈকত। সৈকতের করা বল উইকেটকে হালকা ছুয়ে যাওয়ার অনেক্ষন পর বেল পরে। তাই ফিল্ড আম্পায়ার রিফিউ নেন। আর তাতেই ফিরতে হয় শিনওয়ারিকে। ২ ওভারে তখনও ২২ রান প্রয়োজন ছিল আফগানিস্থানের। বোলিংয়ের পর মোহাম্মদ নাবির দুর্দান্ত ব্যাটিংয়ে শেষ হাসি হাসে আফগানরে। ১৫ বলে ৩ চার ও ২ ছয়ে ৩১ রান করেন নাবি। ৬ উইকেটে জয় পায় আফগানিস্থান। আর সেই সাথে ২-০ তে সিরিজ নিজেদের করেন নেয় রাশিদ-নাবিরা। গত ম্যাচের নায়ক রাশিদ খান দুর্দান্ত বোলিংয়ে আজও ম্যাচ সেরা।

বাংলা ইনিশিয়েটরে প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।