প্রচ্ছদ » খেলাধুলা » শ্বাসরুদ্ধকর ম্যাচে সেনেগাল-জাপানের পয়েন্ট ভাগাভাগি!

শ্বাসরুদ্ধকর ম্যাচে সেনেগাল-জাপানের পয়েন্ট ভাগাভাগি!

প্রকাশ : ২৫ জুন ২০১৮১২:৪৯:৫৯ পূর্বাহ্ন

খাতুনে জান্নাত | বাংলা ইনিশিয়েটর

আজ ইয়েকাতেরিনবুর্গে ২-২ গোলে ড্র হয়েছে জাপান-সেনেগালের ম্যাচ। জাপানের পক্ষে দুটো গোল করেছেন ইনুই ও হোন্ডা।

যদিও বদলি হিসেবে নেমেছেন হোন্ডা, তবুও সম্পূর্ণ নিজের চেষ্টায় দলকে সমতায় ফেরান। একমাত্র জাপানি ফুটবলার হিসেবে তিন বিশ্বকাপেই করলেন গোল।

১১ মিনিটে সেনেগালকে এগিয়ে নেন সাদিও মানে। ৩৪ মিনিটে জাপানকে সমতায় ফেরান ইনুই। ৭১ মিনিটে সেনেগালকে এগিয়ে নেন ওয়াগুয়ে। ৭ মিনিট পর জাপানকে সমতায় ফেরান হোন্ডা। কেইসুকে হোন্ডাকে নামানো হলো ৭২ মিনিটে। নেমেই গোলের দেখা পেতে নিলেন মাত্র ৬ মিনিট। সেনেগাল গোলরক্ষক খাদিম এন’দিয়ায় খুব যে বড় ভুল করেছেন, তা নয়। তবে এ সময়ে সামান্যতম ভুলেরও বড় মূল্য দিতে হয়, সেনেগালকে সেটিই দিতে হয়েছে। পাকা গোলশিকারির মতো ফাঁকায় দাঁড়িয়ে ছিলেন হোন্ডা। তাকাসি ইনুইয়ের বাড়িয়ে দেওয়া বলে ফাঁকা পোস্টে জড়িয়ে দিতে ভুল করেননি জাপানি মিডফিল্ডার। হোন্ডার গোলেই ইয়েকাতেরিনবুর্গে সেনেগালের বিপক্ষে ২-২ সমতায় মাঠ ছেড়েছে জাপান।

বিশ্বকাপে আজই প্রথম এশীয় দলের বিপক্ষে খেলল সেনেগাল। জাপানের বিপক্ষে অভিজ্ঞতা খারাপ না হলেও সুখকরও হলো না। দুবার এগিয়ে থেকেও ড্র নিয়ে মাঠ ছাড়তে হয়েছে বলে সেনেগালের খেলোয়াড়দের হতাশ হতে দেখা গেল ম্যাচ শেষে।

জাপানিজরা অবশ্য বেশ খুশি! যদিও জিততে পারে নি, তবে আরেকটু চেষ্টা করলে জয় অধরা থাকতো না তাদের। ১২ মিনিটে পাঞ্চ করতে গিয়েই ভুলটা করলেন জাপানি গোলরক্ষক এইজি কাওয়াশিমা। জাপানের গোলরক্ষকের ভুল টেকনিকের সুযোগ নিলেন মানে। এগিয়ে গেল সেনেগাল। ৩৪ মিনিটে ইয়োতো নাগাতোমোর সঙ্গে তাকাশি ইনুইর অসাধারণ এক বোঝাপড়ায় সমতায় ফিরল জাপান। বাঁ প্রান্ত দিয়ে ঢুকেই বলটা বানিয়ে দিলেন ইনুইকে। ইনুই ভুল করেননি গোলপোস্ট খুঁজে নিতে। প্রথমার্ধ শেষ ১-১ সমতায়।


সেনেগালের চেয়ে যেন গোল পেতে জাপানিই বেশি মরিয়া ছিল। ৬০ মিনিটে ওয়ান-টু খেলে অসাধারণ বিল্ডআপে জাপানিজরা হামলে পড়লেন সেনেগালের রক্ষণে। ইয়ায়ু ওসাকাকে শুধু পা ছোঁয়ালেই হতো। এটাই পারলেন না! অল্পের জন্য ২-১ হলো না জাপানের। ভাগ্যের ছোঁয়াও তারা পায়নি ৬৪ মিনিটে। ইনুইয়ের মাপা শটটা লাগল একেবারে ক্রসবারে। কোথায় গোল দেবে, তা নয়; উল্টো ৭১ মিনিটে খেয়ে বসল জাপান। ইউসুফ সাবালির পাসটা ব্যাকহিলে ফ্লিক করতে চেয়েছিলেন এম’বায়ে নায়েং। পারেননি। তাঁর পরেই থাকা ওয়াগুয়ে হাতছাড়া করেননি সুযোগটা, দলকে এগিয়ে নিলেন সেনেগাল ডিফেন্ডার।

বেশ টানটান উত্তেজনার খেলা হলেও কোনো দলই জয়কে নিজের করে নিতে পারলো না! দেখা যাক আজ কাজানায় পোল্যান্ড বনাম কলম্বিয়ার ম্যাচে সেই আক্ষেপ ঘোচে নাকি ফুটবলপ্রেমীদের!

বাংলা ইনিশিয়েটরে প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।