প্রচ্ছদ » খেলাধুলা » রোনালদোও নাম লেখালেন মেসির দলে!

রোনালদোও নাম লেখালেন মেসির দলে!

প্রকাশ : ২৬ জুন ২০১৮৮:১৬:৪৮ অপরাহ্ন

খাতুনে জান্নাত | বাংলা ইনিশিয়েটর

আর্জেন্টিনা বনাম আইসল্যান্ডের ম্যাচে নিশ্চিত জয়ের থেকে পিছিয়ে পড়েছিলো আর্জেন্টিনা, শুধুমাত্র মেসির পেনাল্টি কিক মিসের কারণে। আজ রোনালদোও পেনাল্টি কিক মিস করে দলকে নিশ্চিত জয় থেকে বঞ্চিত করলেন! এরই মাধ্যমে ‘বি’ গ্রুপের রানার্স আপ দল হিসেবে শেষ ষোলোয় উঠেছে পর্তুগাল, আর ইরানকে বিদায় নিতে হলো রঙিন এই আসর ছেড়ে।

গ্রুপপর্বে নিজেদের শেষ ম্যাচে পয়েন্ট ভাগ করলেও ‘বি’ গ্রুপের রানার্সআপ দল হিসেবে শেষ ষোলোয় উঠেছে পর্তুগাল। ৩ ম্যাচে তাঁদের সংগ্রহ ৫ পয়েন্ট। শেষ ষোলোয় পর্তুগালের প্রতিপক্ষ উরুগুয়ে। তবে এই ম্যাচে পর্তুগালের ঘাম ছুটিয়ে ছেড়েছে ইরান। ৪ পয়েন্ট নিয়ে গ্রুপের তৃতীয় দল হিসেবে তাঁরা বিশ্বকাপ থেকে বিদায় নিলেও শেষ ষোলোয় ওঠার আশা ছিল। সে জন্য পর্তুগালের বিপক্ষে জয় তুলে নেওয়ার লক্ষ্যে মাঠে নেমে তাঁরা গোল পেলেও সেটা ছিল সমতাসূচক এবং গোলটা এসেছেও যোগ করা সময়ে।

প্রথমার্ধে পর্তুগালের সঙ্গে পাল্লা দিয়েই খেলেছে ইরান। স্পেনের বিপক্ষে আগের ম্যাচের মতো রক্ষণভাগে ‘বাস পার্ক’ করার ট্যাকটিস বেছে নেননি দলটির কোচ কার্লোস কুইরোজ। রক্ষণেও আঁটসাঁট ছিলেন রোনালদোদের সাবেক এই কোচের শিষ্যরা। কিন্তু প্রথমার্ধের শেষ মিনিটে এসে তাঁরা পর্তুগিজ আক্রমণভাগকে আর আটকে রাখতে পারেনি। সতীর্থ সেদরিক সোয়ারেসের সঙ্গে ওয়ান-টু খেলে ডান প্রান্ত দিয়ে বক্সের মাথা থেকে ডান পায়ের বাঁকানো শটে দুর্দান্ত এক গোল করেন কারেসমা।

বিরতির পর ৪৯ মিনিটে নাটকীয়তা ভর করে ম্যাচে। রোনালদোকে বক্সে ফেলে দেন ইরানের মোর্তেজা পাউরিলাগানজি। পেনাল্টির আবেদন করে পর্তুগাল। ভিডিও অ্যাসিস্ট্যান্ট রেফারির (ভিএআর) সহায়তায় রেফারি পেনাল্টি দিলেও ইরানের খেলোয়াড়েরা প্রতিবাদ জানিয়েছিল। তবে রোনালদো পেনাল্টি মিস করে তাঁদের রাগ কিছুটা কমিয়েছেন! অবশ্য ইরান গোলরক্ষক আলীরেজা বেইরানভান্দের অবদানও কম নয়। রোনালদো স্পটকিক নেওয়ার আগে গোললাইনের পেছনে দাঁড়িয়েছিলেন তিনি। পর্তুগিজ তারকা ডান দিকে শট নিলে এক লাফে সামনে এসে দারুণ দক্ষতায় রুখে দেন বেইরানভান্দ।

যোগ করা সময়ে আবারও নাটক। পর্তুগালের বক্সে ‘হ্যান্ডবল’-করেন সোয়ারেস। এবারও কিছুটা সন্দেহ থাকায় ভিএআর-এর সহায়তা নিয়ে পেনাল্টির সিদ্ধান্ত দেন রেফারি। এ নিয়ে উত্তেজনা ভর করে দুই দলের মধ্যে। কিন্তু স্পটকিক থেকে ইরানের সমতাসূচক গোল করতে কোনো ভুল করেননি করিম আনসারফিল্ড।

একদিকে পর্তুগাল-ইরানের এই নাটকীয় লড়াই, অন্যদিকে স্পেন-মরক্কোর। দুটো খেলাতেই উত্তেজনার ছিল না কোনো কমতি, উপভোগ্য ছিল দুটিই। তার উপর ইরানের মোর্তেজা পাউরালিয়াগানজিকে পর্তুগাল তারকা রোনালদোর কনুইয়ের গুতা দেয়ায় উত্তেজনা আরও অনেকটা বেড়ে যায়! কী হবে রোনালদোর? সে কি লাল কার্ড পাবে? তবে রিয়াল মাদ্রিদ এই হিরো লাল কার্ডের হাত থেকে বেঁচে যায়, হলুদেই হয় রক্ষা। এমনই উত্তেজনায় শেষ হয় এই ম্যাচ।

তবে সবশেষে এটা তো নিশ্চিত যে পেনাল্টি মিস করায় রোনালদোর সমালোচনার কোনো শেষ থাকবে না! যেমনটা সইতে হচ্ছে মেসিকে!

বাংলা ইনিশিয়েটরে প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।